বঙ্গবন্ধু অ্যাডভেঞ্চার উৎসব,উদ্বোধন ১১ ও সমাপনী ১৫ তারিখ





শেয়ার

দেশবিদেশ২৪নিউজডেস্ক : চলতি বছরে বঙ্গবন্ধু অ্যাডভেঞ্চার উৎসব উপলক্ষ্যে আজ ৯ জানুয়ারী শনিবার বিকালে পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের প্রধান কার্যালয়ের রাঙ্গামাটিস্থ কর্ণফুলী সম্মেলন কক্ষে এক সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়।

 

পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের চেয়ারম্যান নব বিক্রম কিশোর ত্রিপুরার উপস্থিতিতে ড. প্রকাশ কান্তি চৌধুরী (উপসচিব) সদস্য পরিকল্পনা উপস্থাপনায় সংবাদ সম্মেলনে পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের চেয়ারম্যান নব বিক্রম কিশোর ত্রিপুরা, এনডিসি বঙ্গবন্ধু অ্যাডভেঞ্চার উৎসব আয়োজন সম্পর্কিত বিভিন্ন কার্যক্রমের প্রেক্ষাপট, উদ্দেশ্য, উদ্বোধনী, উৎসবের গুরুত্ব ও তাৎপর্য, কর্মসূচি, অংশগ্রহণকারীদের তথ্য ও সমাপনী অনুষ্ঠান সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা করা হয়। 

সংবাদ সম্মেলনে বক্তারা বলেন,সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙ্গালি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষ্যে পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের আয়োজনে এবং পার্বত্য জেলা পরিষদ বাংলাদেশ অ্যাডভেঞ্চার ফাউন্ডেশন, বাংলাদেশ সেনাবাহিনী, বিজিবি, জেলা প্রশাসন, পুলিশ বিভাগ, সিভিল সার্জন, ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স, জেলা ক্রীড়া সংস্থা, জেলা স্কাউট, রোভার, রেড ক্রিসেন্টসহ বিভিন্ন সরকারি-বেসরকারি সংস্থা/বিভাগ/দপ্তর সার্বিক সহযোগিতায় বঙ্গবন্ধু অ্যাডভেঞ্চার উৎসবের আয়োজন করা হয়েছে। বঙ্গবন্ধু অ্যাডভেঞ্চার উৎসব’কে সফল করার জন্য ইতোমধ্যে পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ড সুনির্দিষ্ট কার্যক্রম গ্রহণ করেছে। এ কার্যক্রমের গুরুত্ব ও তাৎপর্য তুলে ধরার লক্ষ্যে গণমাধ্যম তথা সংবাদপত্র, টেলিভিশন, বাংলাদেশ বেতারসহ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ব্যাপকভাবে প্রচার ও প্রচারনার জন্য আজকের এ সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন বলে জানান বক্তারা।

 

টেকসই পর্যটনখাত বাংলাদেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নের অন্যতম প্রধানক্ষেত্র হতে পারে। বিশেষ করে অ্যাডভেঞ্চার পর্যটন দেশ-বিদেশের পর্যটকদের আকর্ষণ করবে যা আমাদের দেশের অর্থনীতিতে ইতিবাচক প্রভাব ফেলবে। অ্যাডভেঞ্চার ফেস্টিভলের মাধ্যমে দেশের অ্যাডভেঞ্চার পর্যটন সম্পদের সম্ভাবনা প্রসারিত ও বিকশিত হবে। পর্বতারোহণ, নৌবিহার, কায়াকিং, হাইকিং ও ট্রেইল রান, টিম বিল্ডিং, ট্রেজার হান্ট, ট্রেকিং, ক্যানিওনিং, ট্রি ট্রেইল, রোপ কোর্স, মাউন্টেইন বাইক, জিপলাইন, রেপলিং, দর্শনীয় স্থান পরিদর্শন ও কেভ ডিসকভারী ইভেন্টসমূহে অংশগ্রহণের মাধ্যমে দুঃসাহসিক অভিযাত্রায় এক অন্যরকম ক্রীড়া অ্যাডভেঞ্চারের অভিজ্ঞতা অর্জন করবে। এতে অ্যাডভেঞ্চার ক্রীড়াপ্রেমী অংশগ্রহণকারীদের শারীরিক ও মানসিক স্বাস্থ্যের উন্নতি হবে। এছাড়া পাহাড় ও সমতলে বসবাসকারী জনমানুষের এ কার্যক্রমের মাধ্যমে ঘনিষ্ঠতর হবে এবং পরষ্পরের মধ্যে সম্প্রীতি ও সৌহার্দ্যের বন্ধন সুদৃঢ় হবে। জাতির পিতার জন্মশত বার্ষিকীর শেষলগ্নে ও বাংলাদেশের ৫০ বছর পূর্তি শুভক্ষনে তাঁর নামে অনুষ্ঠিত অ্যাডভেঞ্চার উৎসবের ব্যাঞ্জনা হবে সুদূর প্রসারী। 

জাতীয় পর্যায়ে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান-এর শততম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষ্যে দেশব্যাপী বিভিন্ন আয়োজনের অংশ হিসেবে এতদঞ্চলের জনগণের অংশগ্রহণ নিশ্চিত করা এবং মুজিব বর্ষ উদযাপনে ভিন্ন মাত্রা যোগ করা।পার্বত্য চট্টগ্রামে সমৃদ্ধ সাংস্কৃতিক ঐতিহ্যকে দেশীয় ও আন্তর্জাতিকভাবে উপস্থাপন করা।রোমাঞ্চপ্রিয় তরুণদের উৎসাহ প্রদানের মাধ্যমে বিশ্বব্যাপী বিভিন্ন অ্যাডভেঞ্চারমূলক কার্যক্রমে তাদের অংশগ্রহণ বৃদ্ধিতে উদ্বুদ্ধকরণ।তরুণদের মধ্যে শৃঙ্খলা, পরোপকার, সহনশীলতাসহ বিভিন্ন মানবিক গুণের বিকাশ ঘটানো।চ্যালেঞ্জিং বিভিন্ন ইভেন্টে তরুণদের অংশগ্রহণের মাধ্যমে আত্মপ্রত্যয়ী ও উদ্যমী যুবসমাজ গড়ে তোলা।অ্যাডভেঞ্চার কার্যক্রমের মাধ্যমে তরুণদের মাঝে সাহস ও দেশপ্রেম জাগ্রত করা এবং পার্বত্যাঞ্চলের পর্যটনের অপার সম্ভাবনাকে কাজে লাগানো ও এ অঞ্চলে অ্যাডভেঞ্চার ট্যুরিজমকে জনপ্রিয় করে তোলা এ উৎসবের মূল কার্যক্রম ও উদ্দেশ্য বলে জানানো হয় সংবাদ সম্মেলনে। বঙ্গবন্ধু অ্যাডভেঞ্চার উৎসব ২০২১ এ তিন পার্বত্য জেলা থেকে ৫০ (পঞ্চাশ) এবং দেশের অন্যান্য জেলা থেকে ৫০(পঞ্চাশ) জনসহ সর্বমোট ১০০ (একশত)জন যাদের ১৮-৩৫ বছর বয়সী নারী-পুরুষ অ্যাডভেঞ্চারার অংশগ্রহণ করবে।এছাড়াও  উদ্বোধনী অনুুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী  ড. এ. কে আব্দুল মোমেন এমপি। সভাপতিত্ব করবেন পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের চেয়ারম্যান ও বাংলাদেশ অ্যাডভেঞ্চার ফাউন্ডেশনের প্রেসিডেন্ট নব বিক্রম কিশোর ত্রিপুরা, এনডিসি। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলার মাননীয় সংসদ সদস্য ও খাদ্য মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি দীপংকার তালুকদার, রাঙ্গামাটি রিজিয়ন কমান্ডার ও ৩০৫ পদাতিক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মোঃ ইফতেকুর রহমান, রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলার জেলা প্রশাসক এ কে এম মামুনুর রশিদ, অংসুইপ্রু চৌধুরী, চেয়ারম্যান রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদ এবং মীর মোদ্দাছ্ছের হোসেন, পুলিশ সুপার, রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলা। স্বাগত বক্তব্য রাখবেন অতিরিক্ত সচিব পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের ভাইস চেয়ারম্যান মোঃ নূরুল আলম নিজামী।

সমাপনী অনুুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রী বীর বাহাদুর উশৈসিং এমপি। সভাপতিত্ব করবেন পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের মাননীয় চেয়ারম্যান ও বাংলাদেশ অ্যাডভেঞ্চার ফাউন্ডেশনের প্রেসিডেন্ট নব বিক্রম কিশোর ত্রিপুরা। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব মোঃ সফিকুল আহম্মদ, সুদত্ত চাকমা, সচিব, তথ্য কমিশন,এ কে এম মামুনুর রশিদ, জেলা প্রশাসক, রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলা, মীর মোদ্দাছছের হোসেন, পুলিশ সুপার, রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলা। স্বাগত বক্তব্য রাখবেন মোঃ নূরুল আলম নিজামী (অতিরিক্ত সচিব) ভাইস চেয়ারম্যান, পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ড।

সাংবাদিক সম্মেলনে পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের ভাইস চেয়ারম্যান মোঃ নূরুল আলম নিজামী (অতিরিক্ত সচিব),সদস্য প্রশাসন ও সদস্য সচিব আশীষ কুমার বড়–য়া (যুগ্মসচিব), ড. প্রকাশ কান্তি চৌধুরী (উপসচিব), সদস্য পরিকল্পনা, মোহাম্মদ হারুন-অর-রশীদ (উপসচিব), সদস্য বাস্তবায়ন, বাংলাদেশ অ্যাডভেঞ্চার ফাউন্ডেশন প্রতিনিধি, আঞ্চলিক পরিচালক, বাংলাদেশ বেতার, রাঙ্গামাটি, জেলা তথ্য অফিসার, রাঙ্গামাটি, অফিস প্রধান, বাসস, রাঙ্গামাটি, সভাপতি/সাধারণ সম্পাদক, রাঙ্গামাটি/খাগড়াছড়ি/বান্দরবান প্রেস ক্লাব, রাঙ্গামাটি সাংবাদিক ফোরাম, রাঙ্গামাটি রিপোর্টার্স ইউনিট, রাঙ্গামাটি সাংবাদিক ইউনিয়ন, রাঙ্গামাটি জার্নালিষ্ট’স নেটওয়ার্ক, রাঙ্গামাটি জার্নালিষ্ট এসোসিয়েশন, বিটিভি প্রতিনিধি, জাতীয় ও স্থানীয় পর্যায়ের বিভিন্ন টিভি/পত্রিকার প্রতিনিধিসহ বোর্ডের উর্ধ্বতন কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

উল্লেখ্য ,প্রতিদিন প্রতিটি পর্বে বিভিন্ন রোপ অ্যক্টিভিটি, টিমবিল্ডিং ও সাংস্কৃতিক কার্যক্রম পরিচালনা করা হবে।

 

জাতীয়


শেয়ার