শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বিশ্বসভায় বাংলাদেশের উন্নয়ন অগ্রগতি বিষ্ময়রূপে আবির্ভূত





শেয়ার

চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের সিনিয়র যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক ও চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ মনোনীত মেয়র পদপ্রার্থী বীর মুক্তিযোদ্ধা এম.রেজাউল করিম চৌধুরী বলেছেন, মনে রাখতে হবে সম্মিলিতভাবে নৌকাকে বিজয়ী করতে হবে। নৌকার বিজয় মানে, আওয়ামী লীগের বিজয়। আর আওয়ামী লীগের বিজয় মানে বাংলার গণমানুষের বিজয়। ৭০’র নির্বাচনে নৌকা প্রতিকে বাংলার মানুষের মেন্ডেট পেয়ে আওয়ামী লীগ দেশের স্বাধীনতা এনেছে। ৯৬, ২০০৮, ২০১৪ ও ২০১৯ এ নৌকা প্রতিকের বিজয়ে বাংলাদেশ তলাবিহীন ঝুঁড়ি ও হাতপাতা জাতির কলঙ্ক মুছে জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বিশ্ব সভায় উন্নয়ন অগ্রগতির বিষ্ময় রূপে আবির্ভূত। উন্নয়নের প্রশ্নে বিশ্ব নেতৃত্ব জননেত্রী শেখ হাসিনা ও বাংলাদেশ দৃষ্টান্ত হিসেবে সামনে তুলে ধরেন। 

 

তিনি আরো বলেন, করোনার দুর্দিনে বিশ্বের অনেক উন্নত রাষ্ট্র তাদের অর্থনীতির সূচক ধরে রাখতে পারেনি, আওয়ামী লীগের নেতৃত্বে বাংলাদেশ বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভসহ অর্থনীতি ও উন্নয়নের সকল সূচকের মান ধরে রাখতে সক্ষম হয়েছে। আওয়ামী লীগ ও অঙ্গসংগঠনের নেতৃবৃন্দ করোনার দুঃসময়ে সবকিছু দিয়ে বাংলার কৃষক, শ্রমিক, জনতার পাশে দাঁড়িয়েছে। ঝুঁকি নিয়ে কাজ করতে গিয়ে আওয়ামী লীগ জাতীয় পর্যায়ের অনেক নেতাসহ সারাদেশে প্রায় ৬০০ নেতাকর্মীকে হারিয়েছি। তাই, মানুষের অকুন্ঠ সমর্থন আমাদের প্রতি থাকবে। আমাদের নেতাকর্মীরা অন্যদের অপপ্রচারের ব্যাপারে মানুষকে সচেতন করতে পারলে সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে আওয়ামী লীগ মনোনীত ও সমর্থিত মেয়র ও কাউন্সিলর প্রার্থীদের বিজয় কেউ ঠেকিয়ে রাখতে পারবেনা।

 

২৩ নং উত্তর পাঠানটুলী ওয়ার্ডে আসন্ন চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন উপলক্ষে কেন্দ্র নির্বাচন পরিচালনা কমিটির আহবায়ক-সচিব ও দলীয় নেতা- কর্মীদের সাথে এক মতবিনিময় সভায় প্রধান 

বক্তার বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। 

 

ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারন সম্পাদক আসিফ খানের সঞ্চালনায়  আব্দুল হান্নান এর সভাপতিত্বে  সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি জনাব মাহতাব উদ্দিন চৌধুরী। তিনি বলেন, নির্বাচনের পূর্ণ প্রস্তুতি নিয়ে রাখতে হবে আমাদের। নির্বাচন কমিশন যখনই তারিখ ঘোষনা করুক জনগনের রায় নিয়ে আমরাই বিজয়ী হব ইনশাল্লাহ্। ভোটারদের সাথে সংযোগ রেখে কেন্দ্র কমিটিগুলো এ বিজয় নিশ্চিত করবে। এ ছাড়া ওয়ার্ড ও ইউনিট গুলো সমম্বিত সিদ্ধান্তে প্রত্যেক পাড়ায় পৃথক পৃথক কর্মসূচী নিয়ে আমাদের সরকারের উন্নয়ন কর্মকান্ড তুলে ধরে বিজয়ের পথকে মসৃণ করতে কাজ করবেন।

 

সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের শিল্প ও বানিজ্য বিষয়ক সম্পাদক মাহবুবুল হক মিয়া, দোস্ত মোহম্মদ, সাবেক কাউন্সিলর এডভোকট রেহেনা বেগম রানু, হাজী শওকত আলী, কাউন্সিলর পদপ্রার্থী  মোহাম্মদ জাবেদ, ইদ্রিস কাজেমী, মোহাম্মদ হাসান, আব্দুল মান্নান ফেরদৌস, সংরক্ষিত আসনের মহিলা কাউন্সিলর পদপ্রার্থী  জাহেদা বেগম পপি,মোহাম্মদ ইব্রাহিম, আনোয়ার মাস্টার, নিয়াজি, মোজাক্কের, আব্দুর রাজ্জাক, আনোয়ার খান,ফরিদ,হারুন,রেজা খান,এডভোকেট এরশাদ,তাহের আহম্মদ, আলমগীর, হাসান,শামসু,মহসিন, রাজু চৌধুরী  শেখ আহম্মদ জাহেদ, নাছির উদ্দীন, আশরাফ উদ্দিন শাহীন, মনোয়ার আলী,জামসেদ,গিয়াসউদ্দিন,ফয়সাল,কাইসার,মিঠু,হেলাল উদ্দিন, গিয়াসউদ্দিন,  আবু তাহের, মালেক খান, নিজাম উদ্দিন আজাদ,দেলোয়ার, মুন্না,বাহার,হোসেন, মোহাম্মদ আলী,অনিক, বিপন, আইয়াজ, শাহীন,  আরমান,আরিফ, আব্দুল মতিন,ফরহাদ, রাকিব উদ্দিন ,মানিক,জীবন, হাসান প্রমুখ।

 

চট্টগ্রাম


শেয়ার