নিখোঁজ সাংবাদিকের মোবাইল থেকে অজ্ঞাত ব্যক্তির ফোন!





শেয়ার

চট্টগ্রাম:  চট্টগ্রামের সাংবাদিক গোলাম সরোয়ার নিখোঁজ হওয়ার প্রায় ২৪ ঘন্টা পর অপহরণকারীরা দুজন সাংবাদিকের সাথে যোগাযোগ করেছে বলে জানা গেছে। সাংবাদিক জুবায়ের সিদ্দীকি ও সাংবাদিক কামরুল হুদার মোবাইলে অজ্ঞাত ব্যক্তি আজ শুক্রবার ৩০ অক্টোবর সকাল ৯টার পর সাংবাদিক গোলাম সরোয়ারের মোবাইল থেকে তাদের ফোন করে। 

 

বেসরকারি টেলিভিশন যমুনা টিভির চট্টগ্রাম ব্যুরো প্রধান জামশেদ চৌধুরী জানান, নিখোঁজ সাংবাদিক গোলাম সরোয়ার এর ফোন (০১৮১৮৪৭১৫৬৮) নাম্বার থেকে সকাল ৯ টা ১১ মিনিটে কল এসেছে সাংবাদিক কামরুল হুদা ভাইয়ের কাছে। না, সরোয়ার কথা বলেনি। আতাউর পরিচয় দিয়ে এক লোক নাকি কামরুল ভাইয়ের কাছে সরোয়ারের স্ত্রীর নম্বর চেয়েছে।  আধঘন্টা পর সাংবাদিক জুবায়ের সিদ্দিকী ভাইকেও ফোন করে ওই লোক। ভাষা নাকি বেশ রূঢ়।  টোনে তাদের  মনে হয়েছে চট্টগ্রামের বাইরের মানুষ। সব মিলিয়ে মনে হচ্ছে, সরোয়ারকে আটকে রেখেছে কেউ। তাৎক্ষনিকভাবে পুলিশকে জানিয়েছি, ট্রেস করার চেষ্টা চলছে। আমরাও জেগে আছি,  সরোয়ারকে ফিরিয়ে আনবোই ইনশাল্লাহ !

 

এদিকে বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের (বিএফইউজে) সহ-সভাপতি রিয়াজ হায়দার চৌধুরী বলেন, চট্টগ্রামের তরুণ সাংবাদিক গোলাম সরোয়ারের একদিনেও খোঁজ না মেলায় স্বাভাবিকভাবে কিছু প্রশ্ন দেখা দিয়েছে। কোনো সংবাদ প্রকাশের কারণে তাকে বিশেষ মহলের টার্গেট হয়েছেন তিনি? তিনি কি অপহরণ হয়েছেন? সম্প্রতি সংবাদ প্রকাশের বিষয়ে ফোন করে গোলাম সরোয়ারকে হুমকি দেয়া হচ্ছিল বলে জানিয়েছেন বিএফইউজের সহ-সভাপতি রিয়াজ হায়দার চৌধুরী। এরপর বৃহস্পতিবার (২৯ অক্টোবর) সকাল থেকে তিনি নিখোঁজ রয়েছেন।

 

 

তিনি আরও বলেন, অপহরণের কোনো আলামত এখনো না মিললেও, সংবাদ প্রকাশ নিয়ে কোনো ব্যক্তি বা গংয়ের সঙ্গে তার বিরোধ রয়েছে কি-না তা নিয়ে শঙ্কা রয়েছে।

 

এ বিষয়ে কোতোয়ালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ মহসিন বলেন, কয়েকজন সাংবাদিকের সঙ্গে অপহরণকারীদের যোগাযোগের বিষয়টি আমরা জেনেছি। আমাদের বিশেষজ্ঞ দল এ নিয়ে কাজ করছে।

 

জানা গেছে,গোলাম সরোয়ার সম্প্রতি চট্টগ্রামের খুলশী এলাকায় ক্যাসিনো ব্যবসা নিয়ে একটি প্রতিবেদন করেন।সেই ক্যাসিনো ব্যবসা চালান চট্টগ্রামের একজন রাজনীতিবিদ ও ভূমি কারবারির ছেলে। এছাড়া সরোয়ার কয়েকজন দুর্নীতিগ্রস্ত পুলিশ কর্মকর্তার বিরুদ্ধেও প্রতিবেদন করেছেন। এক এমপির ছেলেসহ একাধিক প্রভাবশালী নেতার স্বজনদের অবৈধ কারবার নিয়েও প্রতিবেদন করেছে সরোয়ার।সরোয়ারের ঘনিষ্টরা জানিয়েছে,এ নিয়ে কারো কারো সাথে তার কথা কাটাকাটিও হয়েছে।

 

 

অনেক খোঁজাখুঁজি করে না পেয়ে এ ঘটনায় গত ২৯ অক্টোবর রাত ৯টার দিকে চট্টগ্রামের কোতোয়ালী থানায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেন আজকের সূর্যোদয়ের সহকারী সম্পাদক জুবায়ের সিদ্দিকী।

 

গণমাধ্যম


শেয়ার